ভারতীয় লাইসেন্সের মহিমা

সৌরভ ভট্টাচার্য্য

0
338

বিদেশের রাস্তায় ঘুরতে বেরোনো মানে ভরসা সেই গাড়ি। চালক চালাবেন, আপনি পেছনের সিটে কিংবা সামনে বসে বাইরের সৌন্দর্য্যটা উপভোগ করবেন। অথচ আপনি বিদেশের মাটিতে গাড়ির স্টিয়ারিং ধরতে পারছেন না বলেও গুমরে মরছেন ভেতরে ভেতরে। বিদেশে গাড়ি চালানোর লাইসেন্সও নেই আপনার কাছে। তাহলে জেনে রাখুন, এমন অনেকগুলি দেশ আছে যেখানে আপনার কাছে ভারতের ড্রাইভিং লাইসেন্স থাকলেই চলবে। আপনি নিজের মত গাড়ি চালিয়ে ঘুরতে পারবেন যখন খুশি। দরকার শুধুমাত্র একটি গাড়ির। ভাড়ায় ন‌িয়ে নিন গাড়ি, তেল ভরুন আর ঘুরে বেড়ান ইচ্ছে মত। রইল এমনই ৯টি দেশের তথ্য।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র

আমেরিকার প্রায় প্রত্যেকটি শহরেই ভারতীয় লাইসেন্স থাকলেই এক বছর পর্যন্ত নিশ্চিন্তে গাড়ি চালানো যায়। শুধু এইটুকু খেয়াল রাখতে হবে যাতে লাইসেন্সটির সমস্ত তথ্য ইংরেজিতে লেখা থাকে। এক বছর পর অবশ্য আপনার মার্কিন ড্রাইভিং লাইসেন্স প্রয়োজন। আর শুধু লাগবে I-94 ফর্‌ম। যেখানে লেখা থাকবে আমেরিকায় আপনার প্রবেশের তারিখ।

1
Source: defensivedriving.com

জার্মানি

ভারতীয় ড্রাইভিং লাইসেন্স থাকল‌ে আপনি ৬ মাস পর্যন্ত জার্মানিতে গাড়ি চালাতে পারবেন। যদিও পর্যটকদের জন্য জার্মানিতে ইন্টারন্যাশনাল ড্রাইভিং পারমিট আবশ্যিক নয়। তবে কারোর কাছে ইন্টারন্যাশনাল পারমিট থাকলে তা সঙ্গে নিয়েই ঘোরা উচিৎ।

2
Source: YouTube

দক্ষিণ আফ্রিকা

দক্ষিণ আফ্রিকায় সমস্ত দেশের ড্রাইভিং লাইসেন্সই গ্রহণযোগ্য। শুধুমাত্র সেই লাইসেন্সে থাকা তথ্যাবলী ইংরেজিতে হতে হবে। এবং লাইসেন্সে ছবি এবং সই থাকা আবশ্যিক। তবে আপনি যদি কোনও সংস্থা থেকে গাড়ি ভাড়া নিতে চান, সেক্ষেত্রে তারা আপনার কাছে ইন্টারন্যাশনাল ড্রাইভিং পারমিট চাইতে পারে।

3
Source: YouTube

গ্রেট ব্রিটেন

আপনার কাছে ভারতীয় পাসপোর্ট থাকলেই আপনি ইংল্যান্ড, স্কটল্যান্ড এবং ওয়েলসের রাস্তায় এক বছর পর্যন্ত নিশ্চিন্তে গাড়ি চালাতে পারবেন। তবে কিছু নিয়ম তো রয়েছেই। এক্ষেত্রে আপনি শুধুমাত্র ছোট গাড়ি এবং বাইকই চালাতে পারবেন।

4
Source: mic.com

অস্ট্রেলিয়া  

নিউ সাউথ ওয়েলস, কুইনসল্যান্ড, সাউথ অস্ট্রেলিয়ার মত এলাকায় বৈধ ভারতীয় লাইসেন্স থাক‌লেই আপনি গাড়ি চালাতে পারবেন। কিন্তু একমাত্র সেই গাড়িগুলিই চালাতে পারবেন যেগুলির অনুমতি ভারতীয় লাইসেন্সে দেওয়া হয়। অন্যদিকে ভারতীয় লাইসেন্স থাকলে উত্তর অস্ট্রেলিয়ায় ৩ মাস গাড়ি চালানোতে ছাড় দেওয়া হয়।

5
Source: australia.com

ফ্রান্স

আমেরিকা এবং ইউরোপের দেশগুলির মতই, ফ্রান্সেও রাস্তার ডান দিক দিয়েই গাড়ি চালানো হয়। ভারতীয় লাইসেন্স থাকলে আপন‌ি এক বছর পর্যন্ত ফ্রান্সের রাস্তায় গাড়ি চালাতে পারবেন। তবে সেই ল‌াইসেন্স যদি ফেঞ্চ ভাষায় অনুবাদ থাকে তাহলে অনেকটাই সুবিধা মিলবে।

6
Source: telegraph.co.uk

নরওয়ে

নরওয়ে প্রবেশের পর ৩ মাস পর্যন্ত ভারতীয় লাইসেন্স থাকলে গাড়ি চালানো যায়। তবে ইন্টারন্যাশনাল ড্রাইভিং পারমিট আবশ্যিক না হলেও আপনার কাছে ইন্টারন্যাশনাল পারমিট থাকলে আপনি কিছুটা বাড়তি সুবিধা তো পাবেনই।

7
Source: norway.nordicvisitor.com

সুইৎজারল্যান্ড

সুইস চকোলেট মুখে, সুইৎজারল্যান্ডের রাস্তায় সুইস আল্পসের সুন্দর দৃশ্য যে কারোর মন মাতিয়ে দেয়। সুইৎজারল্যান্ড গেলে গাড়ির স্টিয়ারিং হাতে আপনিও অনুভব করতেই পারেন। আপনার কাছে বৈধ ভারতীয় লাইসেন্স থাকলেই হল। এক বছর আপনি নিশ্চিন্তে ড্রাইভিং করতে পারবেন সুইস রোডে।

8
Source: bestcarfinder.co.uk

নিউজিল্যান্ড

ভারতীয় ড্রাইভিং লাইসেন্সে আপনি গোটা এক বছর নিউজিল্যান্ডের রাস্তায় গাড়ি চালাতে পারবেন। অবশ্য একটু কষ্ট আপনাকে করতেই হবে। শুধুমাত্র নিউজিল্যান্ডের কোনও ট্রান্সপোর্ট এজেন্সি কিংবা বৈধ ট্রান্সলেটর এর থেকে নিউজিল্যান্ডের ভাষায় লাইসেন্সটি অনুবাদ করে নিলেই হল। আরও একটি নিয়ম আছে। গাড়ি ভাড়ার নেওয়ার জন্য আপনার বয়স অন্তত ২১ হতেই হবে।

9
Source: YouTube

এবার আর চিন্তা কিসের। বিদেশ ভ্রমণে ড্রাইভিংয়ে আর বাধা রইল না।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY